হাতে আমার হাতকড়া

প্রিয়জনের সঙ্গে শেয়ার করুন :--👍

 64 total views

আমার মুখ থেকে ঝরে পড়ছে কালকূট
দেশে শুরু হয়েছে মারামারি, দাঙ্গা,যুদ্ধ
সবাই হাঘরে চলে যাচ্ছে;-
আমি মৃত্যুশোকে বিছানায় জর্জরিত
হাতে আমার হাতকড়া।
জীবাত্মা অতি সত্তা
জীবজ্ঞানে জিতেন্দ্রিয়।
আমার জাবেদার খাতায় গোবেচারা মন
তড়িঘড়ি প্রকট হচ্ছে বিবাদের ক্ষণ:-
দেশজুড়ে এক ভয়ানক যুদ্ধ শুরু হয়েছে
যে যুদ্ধে আমি নেই
হয়তো ঈশ্বরের পরম কৃপায়।
অবিরত আমার মনে হচ্ছে
শহীদের তাজা রক্ত যেন্ আমার হাতে
এক যুদ্ধ জয়ের নকশা তৈরি করছে;
হয়তো আমার মন বলছে
যদি মৃত্যুর শেষ দিনে যুদ্ধে যেতে পারতাম
তবে জীবাত্মা পরম খুশি জাহুবীর জলে।

 

 

 

পিপাসার রক্তস্রোত আমার হৃদয়ের গহ্বরে-
দু-হাত আমার বদ্ধ হাতকড়াতে
কিভাবে তুলবো রাইফেল বিরোধীদের বিরুদ্ধে!!
তারপর আমার লেখার ক্ষমতার কলম
এক অলৌকিক শক্তি দিলো
মৃত্যুর শেষ দিনে;
আমি বিপ্লবীদের কড়া পোশাক গায়ে জড়িয়ে
যুদ্ধে জড়িয়ে পড়লাম-
এত দিনে বিরোধীদের জয় নিশ্চিত
শেষমেষ দেশের মাটির শেষ সীমানায়
জীবনের শেষ দিনে নিশীথে
বিরোধীদের বুলেটে আমার বুক ঝাঁঝরা করেদিলো-
আমি লুটিয়ে গেলাম
আমার দেশের পবিত্র মাটিতে,
চারিদিকে ধ্বংসের স্তূপ
রাইফেল ও গোলাবারুদে ভরপুর
হাতকড়াতে বদ্ধ হাত রাঙিয়ে উঠলো তাজা রক্তে-
আমি শহীদ হলাম, মৃত হলাম অকপটে।

 

আমার মৃত্যুর পর:- এতদিনে
শহর ধ্বংস হলো, মৃত হলো
বিরোধীরা লুট করল দেশটাকে
চলে গেলো তাঁরা ‘মহাশূন্য’ করে দিয়ে।

আমার মৃত্যুর কঙ্কাল চলে গেলো
মিশরের পিরামিডে-
বন্দী হলাম আমি
নীল আকাশের ঘন মেঘে।
ঠিক এক যুগ পর
আমার জন্ম হলো
আগের জন্মের পবিত্র দেশের মাটিতে
ভালোলাগার এক লগ্নে।।

 

 

 

0

Publication author

0
লেখক-অভিজিৎ হালদার গ্রাম-মোবারকপুর পোষ্ট-ফতেপুর থানা- হাঁসখালী জেলা-নদীয়া পশ্চিমবঙ্গ ভারতবর্ষ আমি নিজেই নিজের শত্রু তাই তো বিরহ বারে বারে ফিরে আসে।
Comments: 1Publics: 371Registration: 15-04-2021
প্রিয়জনের সঙ্গে শেয়ার করুন :--👍
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments

পরিচিতি বাড়াতে একে অপরের লেখায় মন্তব্য করুন। আলাপের মাধ্যমে কবিরা সরাসরি নিজেদের মধ্যে কথা বলুন। (সহজেই কবিকল্পলতা প্রকাশনী ব্যাবহারের জন্য আমাদের এপ্লিকেশনটি ইন্সটল করে নিন)